4e1936e3795e59780703909f0329b8c5-IMG_3830

অভিনেতা হওয়ার চেষ্টা করছি

বিডিকষ্ট ডেস্ক

টেলিভিশন চ্যানেলগুলোর সাত দিনের ঈদ আয়োজন শেষ হচ্ছে আজ বুধবার। ঈদ অনুষ্ঠানমালায় এই কদিন বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে প্রচারিত হয়েছে আফরান নিশো অভিনীত দুই ডজনের বেশি নাটক। আজও বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে তাঁর নাটক প্রচারিত হবে। এসব নিয়েই এই অভিনেতা গতকাল দুপুরে কথা বলেন প্রথম আলোর সঙ্গে।

ঈদের আগে শুনেছিলাম আপনার পা মচকে গেছে?
পা মচকে যাওয়ার পর এখনো ঘরেই আছি। কোথাও বের হতে পারছি না। জরুরি প্রয়োজনে ক্রাচে ভর দিয়ে বের হতে হচ্ছে। ঈদের আগে তো হুইলচেয়ারে বসে আর ক্রাচে ভর দিয়ে অভিনয় করতে হয়েছে। চিকিৎসকের নির্দেশে এখন পুরোপুরি বিশ্রাম। আরও কয়েকটা দিন বিশ্রামে থাকতে হবে। ভক্তদের কাছে দোয়া চাইছি তাড়াতাড়ি যেন সুস্থ হয়ে কাজে ফিরতে পারি।
তাহলে তো গৃহবন্দী ঈদ কাটল আপনার।
একদম তাই। অনেক নাটক দেখা হয়েছে এবার। নিজের নাটক যেমন দেখেছি, অন্য অনেকের কাজও দেখেছি। মা-বাবা, স্ত্রী-সন্তানদের সঙ্গে কাটিয়েছি ঈদটা।
এবার ঈদের আগেই আপনার অনেক নাটক প্রচারের খবর শোনা গিয়েছিল…
এই ঈদে আমার অনেক নাটক প্রচার হয়েছে ঠিকই। সবকিছুকে ছাপিয়ে সুমন আনোয়ারের ফুলমতি নাটকের জন্য বেশি প্রশংসা পেয়েছি। নাটকটিতে আমার চরিত্রের নাম ‘মধু পাগলা’। ফেসবুকে আমি অন্য নাটক নিয়ে কোনো পোস্ট দিলেও সেখানে ফুলমতি নাটকের মধু পাগলা নিয়েই মন্তব্য শুনছি। এর বাইরে কমলা সুন্দরী, পটুয়ার বউ, রোমান্টিক সিনড্রোম, হানড্রেড আউট অব হানড্রেড, ঘ্রাণ বাবা নাটকগুলো দেখার পর আমি নিজে খুশি হয়েছি। মনে হয়েছে, নাটকগুলোর জন্য কষ্ট করে সার্থক হয়েছি। এবার ঈদে মজার নাটকের পাশাপাশি অনেক সিরিয়াস নাটকেও কাজ করা হয়েছে।
আপনি যেসব নাটকের কথা বললেন, সেগুলোতে আপনাকে বৈচিত্র্যময় চরিত্রে দেখা গেছে…
আমি নিজেই এমনটা চেয়েছি। একটা সময় আমাকে রোমান্টিক নাটকে বেশি দেখা যেত। দুই বছর ধরে আমি ব্যতিক্রমী চরিত্রে অভিনয় করতে চাইছি। কেন জানি মনে হয়, পাঁচ বছর পর্যন্ত দর্শকেরা আমাকে নায়ক হিসেবে দেখতে চাইবেন। কিন্তু আমি যদি নিজেকে একজন অভিনেতা হিসেবে সবার কাছে পরিচিত করতে চাই, তাহলে অবশ্যই আমাকে ব্যতিক্রমী চরিত্রে কাজ করতে হবে। আমি সেই চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করছি প্রতিনিয়ত। এখন যে ধরনের নাটক হচ্ছে, তাতে করে একটা স্মার্ট ছেলেকে ক্যামেরার সামনে দাঁড় করিয়ে দিলে হয়তো কাজটা হয়ে যাবে। কিন্তু অভিনেতা হিসেবে আলোচনায় আসা অতটা সহজ না। আমি অভিনেতা হওয়ার চেষ্টা করছি।
এ ক্ষেত্রে আপনি কি কাউকে আদর্শ মনে করেন?
অভিনয়ে আমার আদর্শ হুমায়ুন ফরীদি। তিনি চরিত্রনির্ভর কাজ করতেন। পারফরমারদের কাছে তিনি ছিলেন হিরো। আর তাইতো আমিও যা জানি না, তা জানতে চাই। নতুন কিছু শিখতে চাই।
সাক্ষাৎকার: মনজুর কাদের

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Anti-Spam Quiz: