928fd25f9bf6ba3568e48cf3723129d6-sultan-8a

৭ দিনে ১৩ রেকর্ড ভাঙল ‘সুলতান’

বিডিকষ্ট ডেস্ক

৬ জুলাই মুক্তি পেয়েছে সালমানের ছবি সুলতান। সেই থেকে ছবিটি বক্স অফিসে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। কুস্তির ময়দানে ‘সুলতান আলী খান’ যেমন একে একে প্রতিদ্বন্দ্বীদের চিত করেছেন, সেভাবেই বলিউড বক্স অফিসে সালমান খান বাকি ‘খান’দের গড়া সব রেকর্ড একে একে ভেঙে চলছেন। ছবিটি মুক্তির সাত দিনের মাথায় বক্স অফিসের ১৩টি রেকর্ড ভেঙে ফেলেছে। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটির কথা দেওয়া হলো এখানে—
২০০ কোটি রুপির কোঠা
বলিউড বক্স অফিসের সবচেয়ে কঠিন রেকর্ডটি ছিল ২০০ কোটির কোঠা ছুঁয়ে যাওয়া। কিন্তু সুলতান খুব সহজেই সেই রেকর্ডটি ভেঙে গুঁড়িয়ে দিল। মাত্র সাত দিনের ব্যবধানে ছবিটি শুধু ভারতে আয় করেছে ২০০ কোটি রুপির বেশি। এর আগে সালমানেরই বজরঙ্গি ভাইজান ছবিটি নয় দিনে ২০০ কোটি রুপি আয় করে নতুন ইতিহাস গড়ে। এবার সুলতান দিয়ে সালমান নিজেই নিজের রেকর্ড ভাঙলেন।
মুক্তির আগে সর্বোচ্চ আয়
মুক্তির আগে থেকেই বক্স অফিসে আলোড়ন তৈরি করেছিল সুলতান। তখন থেকেই রেকর্ড ভাঙার স্বভাব এই ছবিকে পেয়ে বসে। ছবিটি মুক্তির আগেই অগ্রিম বুকিংয়ের দিক থেকে বলিউডের সব ছবিকে ছাড়িয়ে যায়। মুক্তির এক সপ্তাহ আগেই ভারতের বিভিন্ন প্রান্তের হলমালিকেরা ছবিটির অগ্রিম বুকিং দিয়ে রাখেন। সেই সুবাদে মুক্তির আগেই সুলতান-এর আয়ের খাতায় যোগ হয়ে যায় ২২-২৩ কোটি রুপি; যা এর আগে অন্য কোনো ছবির বেলায় ঘটেনি। সবশেষ সালমানেরই প্রেম রতন ধন পায়ো ছবিটি অগ্রিম বুকিং থেকে সর্বোচ্চ ১৫-১৬ কোটি রুপি মুক্তির আগে আয় করে।
সর্বাধিক পর্দায় প্রদর্শিত ছবিআনুশকা শর্মা
সুলতান ছবিটি আরও একটি নতুন রেকর্ড গড়েছে বলিউডের ইতিহাসে। এই ছবিটি সর্বাধিক—ছয় হাজার পর্দায় প্রদর্শিত হয়েছে। এর আগে কোনো ভারতীয় ছবি একাধারে এতগুলো পর্দায় দেখানো হয়নি। জানা গেছে, ছবিটি একযোগে ভারতের পাঁচ হাজার স্ক্রিনে (পর্দায়) দেখানো হয়েছে। আর ভারতের বাইরে এই ছবি প্রদর্শিত হয়েছে ১ হাজার ২০০ পর্দায়।
২০১৬ সালের সবচেয়ে ব্যবসাসফল ছবি
২০১৬ সালে মুক্তি পাওয়া সেরা ছবির তকমাটিও এরই মধ্যে জিতে নিয়েছে সুলতান। মুক্তির প্রথম দিনেই ৩৬ কোটি ৫৪ লাখ রুপি আয় করে সালমানের এই ছবি পেছনে ফেলেছে গত এপ্রিলে মুক্তি পাওয়া শাহরুখের ফ্যানকে। ফ্যান-এর প্রথম দিনের আয় ছিল ১৯ কোটি ২০ লাখ রুপি। মুক্তির দ্বিতীয় দিনের আয় দিয়েও সালমান খানের সুলতান নতুন রেকর্ড গড়েছে। ছবিটি দ্বিতীয় দিন ৩৯ কোটি রুপির ব্যবসা করে। এর আগে মুক্তির দ্বিতীয় দিন এতটা আয় করেছিল প্রেম রতন ধন পায়ো।
পাকিস্তানের সবচেয়ে ব্যবসাসফল ছবি
শুধু ভারত নয়, পাকিস্তানের চলচ্চিত্র ইতিহাসেও সুলতান ছবি নাম লিখিয়েছে। মুক্তির এক সপ্তাহ না পেরোতেই ছবিটি আয় করেছে চার-পাঁচ কোটি রুপি। এত অল্প সময়ে এতটা আয় এ পর্যন্ত পাকিস্তানের স্থানীয় কোনো ছবিও নাকি করতে পারেনি।
ভারতের চলচ্চিত্র ইতিহাসের সফল ছবি
‘হাইয়েস্ট গ্রসিং বলিউড ফিল্ম’-এর তালিকায় নাম ওঠানো সহজ কথা নয়। কিন্তু সুলতান সাত দিনের মাথায় সেই কঠিন কাজটি করে দেখাল। অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক আয় মিলিয়ে ছবিটি এ পর্যন্ত প্রায় ৩৪৫ কোটি রুপি আয় করেছে। আর এর মধ্য দিয়ে সর্বকালের সবচেয়ে ব্যবসাসফল ছবির তালিকার দশম স্থানে উঠে এসেছে সালমান-আনুশকা অভিনীত ও আলী আব্বাস জাফর পরিচালিত সুলতান। ধারণা করা হচ্ছে, আর কয়েকটি দিন কিংবা সপ্তাহ পেরোলে ছবিটি এই তালিকার শীর্ষেও উঠে আসতে পারে; ভেঙে ফেলতে পারে আমির খানের পিকে ছবির ৭৪১ কোটি রুপি আয়ের রেকর্ড। বক্স অফিস ইন্ডিয়া ডটকম ও ডিএনএ ইন্ডিয়া অবলম্বনে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Anti-Spam Quiz: